পুনরুজ্জীবিত হতে যাচ্ছে চট্টগ্রাম পণ্ডিতবিহার বিশ্ববিদ্যালয়: অপেক্ষা প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনের

Smiley face

প্রায় হাজার বছর পর চট্টগ্রাম পন্ডিতবিহার বিশ্ববিদ্যালয় পুনরুজ্জীবিত হতে যাচ্ছে। ইতিমধ্যে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের প্রতিনিধি দল দেয়াঙ পাহাড়স্থ প্রাচীন অবস্থান স্থলটি সরেজমিনে পরিদদর্শন করে রিপোর্ট প্রদান করেছেন। শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে পণ্ডিতবিহার বিশ্ববিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠিত হবে কি হবে না, এই নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণের জন্য প্রস্তাবনা প্রেরণ করা হয়েছে।এখন শুধু অপেক্ষার প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনের।

চট্টগ্রামের দৈনিক পূর্বদেশ পত্রিকায় ৭ আগস্ট প্রকাশিত সাংবাদিক, গবেষক জামাল উদ্দিনের এক প্রবন্ধে বলা হয়েছে, অতি সম্প্রতি পণ্ডিতবিহার বিশ্ববিদ্যালয়ের ঐতিহ্য ও প্রত্নতত্ত্ব পুনরুদ্ধারে সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ে এক বৈঠকও অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় পণ্ডিতবিহার বিশ্ববিদ্যালয়ের হারিয়ে যাওয়া ঐতিহাসিক সম্পদ উদ্ধারে প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরকে দির্দেশ প্রদান করা হয়েছে। তারই আলোকে প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের এক বিশেষ টিম পরিদর্শন কাজ শেষ করে তা পুনরুদ্ধারে মন্ত্রণালয়ে বাজেট বরাদ্দের জন্য প্রস্তাবনা পেশ করেছেন।

প্রবন্ধে বলা হচ্ছে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের সব জটিলতা এখন প্রায় শেষ। এখন অপেক্ষার পালা শুধ পণ্ডিতবিহার বিশ্ববিদ্যালয়টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হিসাবে প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন লাভ। তা হয়ে গেলে খুব সহসাই চট্টগ্রাম পণ্ডিতবিহার বিশ্ববিদ্যালয়ের কার্যক্রম শুরু হবে। দেয়াঙ পাহাড়ের প্রায় দেড়শ একর পাহাড়ী ভূমিতে পুণঃপ্রতিষ্ঠিত এই বিশ্ববিদ্যালয়টি হবে ঢাকা ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মত একটি পূর্ণাঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়। এই বিশ্ববিদ্যালয়টি পুনরুজ্জীবিত হলে দেশের সভ্যতা ও ঐতিহ্যের বদ্ধ দুয়ারকে খুলে দেবে।

উইকিপিডিয়া তথ্য মতে, পণ্ডিতবিহার, (ইংরেজি: Pandit Vihara) ছিল উপমহাদেশের একটি প্রাচীন বিশ্ববিদ্যালয় এবং বর্তমানে এটি সম্পূর্ণ বিলুপ্ত। খিস্ট্রীয় আনুমানিক অষ্টম শতাব্দীতে পূর্ববঙ্গের (বর্তমান বাংলাদেশ) চট্টগ্রামে এ-বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপিত হয়েছিলো ধারণা করা হয়। মূলত এ-বিশ্ববিদ্যালয় ছিল নালন্দা বিশ্ববিদ্যালয়ের মতোন একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, যা পূর্ববঙ্গে তান্ত্রিক বৌদ্ধধর্ম বিষয়ে শিক্ষা ও মতবাদ প্রচারের কেন্দ্র হিসেবে পরিচালিত হতো। ত্রয়োদশ শতাব্দির এক সংঘাতে বিহারের নালন্দা বিহার ধ্বংস হয়ে যায় এবং পরবর্তীতে পূর্ব দেশীয় বৌদ্ধ পণ্ডিত মণ্ডলীদের অনেকেই পণ্ডিতবিহারে আশ্রয় নিয়েছিলেন। পাল সাম্রজ্যের বৌদ্ধ ভিক্ষু এবং বৌদ্ধধর্মপ্রচারক অতীশ দীপঙ্কর শ্রীজ্ঞান পণ্ডিতবিহারে কিছুকাল অবস্থান ও অধ্যয়ন করেছিলেন।

পণ্ডিতবিহারে অধ্যাপকগণ তাদের অধ্যাপনা, অধ্যয়ন ও যোগ সাধনার পাশাপাশি অবসর-অবকাশে যে সকল গান-দোঁহা রচনা করেছিলেন তাই পরবর্তীকালে চর্যাপদ নামে বাংলা ভাষা ও কাব্যের আদি নিদর্শন হিসেবে স্বীকৃত লাভ করে। পণ্ডিতবিহারের পূর্বে এবং পরবর্তীকালে আনুমানিক আঠারো শতকের মধ্যকাল পর্যন্ত অন্য কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নাম ইতিহাসে পাওয়া যায় না।

পণ্ডিতবিহারের অবস্থান সম্পর্কে বিভিন্ন মত প্রচলিত রয়েছে। প্রাপ্ত কিছু স্মারক নিদর্শন অনুযায়ী তিব্বত ও বৌদ্ধ সংস্কৃতি বিশেষজ্ঞ শরচ্চন্দ্র দাস প্রমুখ পণ্ডিত ও গবেষকবৃন্দের অনুমান, অষ্টম শতাব্দীতে চট্টগ্রাম মহানগরের বর্তমান জেনারেল হাসপাতাল সংলগ্ন পাহাড়ে এ-বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থান ছিল। অনেকের মতে ধারণা করা হয় চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার চক্রশালায় অথবা আনোয়ারা উপজেলার দেয়াঙ পাহাড়ের দক্ষিণাংশে ঝিওরী ও হাজিগাঁও গ্রামে আবার অনেকের মতে সীতাকুণ্ড উপজেলার চন্দ্রনাথ পাহাড়ে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থান ছিল। তবে অধিকাংশ মতের ভিত্তিতে দেয়াঙ পাহাড়েই বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থান ছিল বলে অনেক তথ্য-উপাত্ত পাওয়া যায়। ফেব্রুয়ারি ১৯২৭ খ্রিস্টাব্দে আনোয়ারার দেয়াঙ পাহাড়স্থ ঝিওরী ও হাজিগাঁও গ্রামের সীমান্ত থেকে ৬৬টি পিতলের বুদ্ধমূর্তি আবিষ্কৃত হয়, যা এই স্থানে বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থান সম্পর্কে প্রমাণ নিশ্চিত করে।

Facebook Comments

বৌদ্ধদের আরো তথ্য ও সংবাদ পেতে হলে আমাদের ফেসবুক ফ্যান পেইজে লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন।: www.facebook.com/buddhisttimes

দি বুড্ডিস্ট টাইমস.কম একটি স্বতন্ত্র ইন্টারনেট মিডিয়া। এখানে বৌদ্ধদের দৈনন্দিন জীবনের বিষয়গুলোকেই তুলে আনার চেষ্টা করা হয়। পাশাপাশি যে কেহ লিখতে পারেন দি বুড্ডিস্ট টাইমস এ। দি বুড্ডিস্ট টাইমস এর সাথে লেখ-লেখিতে যুক্ত হতে চাইলে ব্যবহার বিধি ও নীতিমালা পড়ুন অথবা নিবন্ধন করুন
এখানে।

Short URL: http://thebuddhisttimes.com/?p=6273

Posted by on Aug 8 2017. Filed under এক্সক্লুসিভ, দেশের বৌদ্ধ সংবাদ. You can follow any responses to this entry through the RSS 2.0. You can leave a response or trackback to this entry

You must be logged in to post a comment Login

Smiley face

সর্বশেষ টাইমস

Recent Posts: NivvanaTV covering Buddhist and Buddhist community in World, with weekly news, views, entertainment, and programs for all age.

রাঙ্গামাটিতে পাহাড় ধ্বসে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে আর্থিক সহায়তা প্রদান

রাঙ্গামাটিতে পাহাড় ধ্বসে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে আর্থিক সহায়তা প্রদান

সুপ্রিয় চাকমা শুভ,রাঙামাটি সাম্প্রতিক পাহাড় ধস ও প্রাকৃতিক দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থ রাঙ্গামাটির বিলাইছড়ি উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের ৬০টি পরিবারকে আর্থিক সহায়তা দিয়েছে বিদেশী দাতা সংস্থা দি স্যালভেশন আর্মী বাংলাদেশ। শুক্রবার (১৯ জানুয়ারী) সকালে বিলাইছড়ি উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে এক অনুষ্ঠানে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য রেমলিয়ানা পাংখোয়া প্রধান অতিথি হিসাবে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের সদস্যদের মাঝে আর্থিক সহায়তা বিতরণ করেন। […]

Photo Gallery

Top Downloads

Icon

The Buddhist Times Android apps 46.21 KB 54 downloads

...
Icon

অভিধর্ম্মার্থ সংগ্রহ 1.65 MB 1 downloads

গ্রন্থের নামানুসারে ইহা একটি অর্থ-সংগ্রহ...
Developed by Dhammabiriya
error: অনুগ্রহ করে কপি/পেস্ট মনোভাব পরিহার করি নিজে লেখার যোগ্যতা অর্জন করুন।